হয়রানীর নামে জরিমানা ও সিলগালা, প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন

আবু হাসান (আকাশ),লালমনিরহাট প্রতিনিধি:
লালমনিরহাটের পাটগ্রাম উপজেলায় পপুলার ডায়াগনস্টিক ও ফিজিওথেরাপি সেন্টারে হয়রানীর নামে জরিমানা ও সিলগালার প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন করেছেন ওই প্রতিষ্ঠানের স্বত্তাধিকারী খন্দকার মোমিনুর ইসলাম মানিক। শনিবার (০৪ জুন) পপুলার ডায়াগনস্টিক ও ফিজিওথেরাপি সেন্টারে উক্ত সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

উক্ত সংবাদ সম্মেলনে খন্দকার মোমিনুর ইসলাম মানিক দাবী করেন, গত ৩১ মে তার প্রতিষ্ঠানে লাইসেন্স তদারকি করার জন্য স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের একটি অভিযান পরিচালনা করে। অভিযান পরিচালনাকালে ওই প্রতিষ্ঠানের জরিমানা ও প্রতিষ্ঠানটি সিলগালা করে দেয়া হয়। তিনি আরও বলেন, প্রতিষ্ঠানটি অনলাইনে নিবন্ধন করা হয়েছিল যার নং- ১৬৬২/২০-২১ এবং ২১-২২ অর্থবছরের অনলাইন সাবমিট থাকার পরেও প্রতিষ্ঠানটির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। এটি একটি পক্ষপাত মূলক আচারণ। অথচ অত্র উপজেলায় অনেক প্রতিষ্ঠান রয়েছে যাদের নামের তালিকাও স্বাস্থ্য অধিদপ্তরে নেই। তাদের বিরুদ্ধে এখন পর্যন্ত জোরালো কোন পদক্ষেপ নেয়নি স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। পপুলার ডায়াগনস্টিক ও ফিজিওথেরাপি সেন্টারটি প্রতিহিংসার শিকার বলেও দাবী করেন তিনি।

উক্ত প্রতিষ্ঠানটি বন্ধ থাকায় বিপাকে পরেছে দীর্ঘদিন ধরে সেবা নিতে আসা রোগীরা। এছাড়াও এই প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে সংশ্লিষ্টরা চরম বিপাকে পরে মানবেতর জীবনযাপন করছেন। প্রতিষ্ঠানটি বিভিন্ন সংস্থার ঋনের মাধ্যমে পরিচালিত হওয়ায় ঋনের কিস্তি দিতে হিমশিম খাচ্ছি। অতিদ্রæত প্রতিষ্ঠানটি চালু করার দাবী জানিয়েছেন ওই প্রতিষ্ঠানের স্বত্তাধিকারী খন্দকার মোমিনুর ইসলাম মানিকসহ কর্মচারীবৃন্দ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.