ফরিদপুরে পাট খেতে নারীর মাথা বিচ্ছিন্ন অর্ধগলিত মরদেহ

মাহবুব পিয়াল, ফরিদপুরঃ
ফরিদপুরের বোয়ালমারীতে বস্তাবন্দি অবস্থায় পাটখেত থেকে অর্ধগলিত এক নারীর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মরদেহের মাথা বিচ্ছিন্ন ছিল।

মঙ্গলবার (১৭ মে) উপজেলার দাদপুর ইউনিয়নের হাসামদিয়া গ্রামের মাঠের পাট খেত থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।

পুলিশ জানায়, সকালে কৃষকরা পাটখেতের পরিচর্যা করতে গিয়ে বস্তাবন্দি মরদেহটি দেখতে পায়। পরে পুলিশ মাথাবিহীন মরদেহটি উদ্ধার করে। এসময় বিচ্ছিন্ন মাথা পাশের আরেক পাট খেত থেকে উদ্ধার করা হয়।

দাদপুর ইউপি চেয়ারম্যান মো. মোশাররফ হোসেন বলেন, স্থানীয়রা পাটখেতে কাজ করার সময় প্লাস্টিকের বস্তায় মরদেহ দেখে থানায় খবর দেয়। পরে পুলিশ বস্তার মুখ খুলে মাথাবিহীন মরদেহ ও পাশের আরেকটি পাটখেত থেকে মাথা উদ্ধার করে। এখন পর্যন্ত মরদেহের পরিচয় জানা যায়নি। বয়স আনুমানিক ২৭ -২৮ বছর।

বোয়ালমারী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ নুরুল আলম বলেন, পৃথক পাটখেত থেকে অর্ধগলিত দেহ ও মাথা উদ্ধার করা হয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে ৮ থেকে ১০ দিন আগে তাকে হত্যার পর মরদেহ ফেলে রাখা হয়েছে। মরদেহর পরিচয় ও খুনিদের শনাক্তে কাজ চলছে। এ বিষয়ে আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.