কুয়াকাটায় ধর্ষণের মামলার প্রধান আসামি গ্রেপ্তার

জাহিদুল ইসলাম জাহিদ, কুয়াকাটা প্রতিনিধি:
পটুয়াখালীর কুয়াকাটায় হাচান শরীফকে (১৬) প্রধান আসামি করে, কিশোরীর মা মোট চার জনের বিরুদ্ধে ছয় বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের মামলা করেছে মহিপুর থানায়, ২৯ এপ্রিল২০২২ রোজ (শুক্রবার)। তখন থেকেই মহিপুর থানার একটি দল তল্লাশি শুরু করেন।

থানার সূত্রে জানতে পারি,মামলার প্রধান আসামি হাসান শরীফকে গ্রেপ্তার করেছে মহিপুর থানা পুলিশ।

রোববার (১ মে) দুপুরে মহিপুর থানার ওসির নেতৃত্বে পুলিশের একটি দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে কুয়াকাটার পাঞ্জুপাড়া গ্রাম থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে।

মহিপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এম এ খায়ের জানান, শিশু ধর্ষণ মামলার প্রধান আসামিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। মামলার অন্য আসামিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

গত বৃহস্পতিবার (২৮ এপ্রিল) বিকালে পশ্চিম কুয়াকাটা গ্রামে ছয় বছরের ছোট বোনকে নিয়ে, নয় বছরের ভাই জিলাপী ফল পাড়তে যায়। এ সময় একই গ্রামের ইব্রাহিম শরীফের ছেলে হাসান শিশুটির ভাইকে ভয় দেখিয়ে একটি আম গাছের সাথে বেঁধে ছয় বছরের শিশুকে বনের মধ্যে নিয়ে ধর্ষণ করে। এতে শিশুটির রক্তক্ষরণ শুরু হলে সে চিৎকার করে। তখন এলাকার লোকজন এগিয়ে এলে হাসান পালিয়ে যায়।

পরে খবর পেয়ে শিশুটিকে আশংকাজনক অবস্থায় মহিপুর থানায় আসার পথে তাদের বাঁধা দেয় হাসানের বাবা ও ভাইয়েরা। একপর্যায়ে তাদের মারধর করে। পরবর্তীতে স্থানীয় গ্রামবাসী ও থানা পুলিশের সহায়তায় রাত আনুমানিক সাড়ে ৯টায় শিশুটিকে কলাপাড়া হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। কিন্তু তার অবস্থার অবনতি হওয়ায় ওই রাতেই তাকে পটুয়াখালী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published.