নোয়াখালী জিলা স্কুলের প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে অনিয়ম দুর্নীতির অভিযোগে মানববন্ধন

নোয়াখালী প্রতিনিধি:
নোয়াখালী জিলা স্কুলের প্রধান শিক্ষক নুর উদ্দিন মো. জাহাঙ্গীরের বিরুদ্ধে পঞ্চম শ্রেণিতে ভর্তি পরীক্ষার লটারীতে ব্যাপক অনিয়ম ও দূর্নীতির অভিযোগে মানববন্ধন করেছে স্কুলের বর্তমান ও সাবেক শিক্ষার্থীরা। বৃহস্পতিবার (২১ এপ্রিল) বেলা সাড়ে ১১ টায় নোয়াখালী প্রেসক্লাবের সামনে এ কর্মসূচি পালন করে স্কুলের বর্তমান ছাত্র ও সাবেক শিক্ষার্থীরা।

শিক্ষার্থীরা অভিযোগ করে বলেন, প্রধান শিক্ষক দীর্ঘদিন থেকে অনিয়ম ও দূর্নীতি করে আসছে। ছাত্র ও শিক্ষকদেরকে নানান হয়রানি করে। নাম প্রকাশে কয়েকজন শিক্ষক জানান, নানান অজুহাত সৃষ্টি করে শিক্ষকদের বেতন আটকিয়ে হয়রানি করছে। এছাড়া তার বিরুদ্ধে ভূয়া ভাউচার সৃজনকরে অনিয়ম ও দূর্নীতির মাধ্যমে লক্ষ লক্ষ টাকা আত্মসাতের অভিযোগ রয়েছে। তার বোন সাজেদা সুলতানার ছেলে মোহাম্মদ ওয়াফি ইলহাম কে লটারির মাধ্যমে জালিয়াতি করে ৬ বার একই ক্লাস ৫ম শ্রেণিতে ভর্তি পরীক্ষার লটারী-২০২২ এ নির্বাচিত করেন। এ নিয়ে ফেইসবুক সহ বিভিন্ন স্থানে ভর্তি পরীক্ষার লটারীর ব্যাপক সমালোচনার সৃষ্টি হয়েছে। যাহা বর্তমানে তদন্ত চলছে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে নোয়াখালী জিলা স্কুলের প্রধান শিক্ষক নুর উদ্দিন মো.জাহাঙ্গীর অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, এটা আমার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র, তবে ভর্তির বিষয়ে চট্টগ্রাম তদন্ত এসেছে।

এ বিষয়ে শিক্ষা অধিদপ্তরে চট্টগ্রামের আঞ্চলিক উপ পরিচালক দেবব্রত দাস সত্যতা স্বীকার করে বলেন, আমি ভর্তির বিষয়ে সরেজমিনে তদন্ত করেছি এবং এক ছাত্রকে একাধিকবার ফলাফলের তালিকায় দেখানো হয়েছে, এটা সত্য। আমি তদন্ত রিপোর্ট শিক্ষা অধিদপ্তরে পাঠিয়ে দিয়েছি। নোয়াখালী জেলা প্রশাসক দেওয়ান মাহবুবুর রহমান জানান, এ ঘটনায় আমরা একটি তদন্ত করতেছি এবং বোর্ড তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.