আজ দুর্নীতি যদি জয় লাভ করে তাহলে আমাদের স্বাধীনতার কী প্রয়োজন ছিল-আব্দুল হাই সরকার বীর প্রতিক

মোঃ রফিকুল ইসলাম, কুড়িগ্রাম:
বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ই মার্চের ভাষণ শুনে উদ্বুদ্ধ হয়ে মহান মুক্তিযুদ্ধে অংশ গ্রহণ করেছি। মা মাতৃভাষা দেশ প্রেম না থাকলে কোনো কিছু অর্জন করা সম্ভব নয়। মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণ করেছি জাতির মুক্তির আশায়। দেশ স্বাধীন হবার পর ১৯টি জেলা থেকে ৬৪টি জেলা গঠিত হয়েছে। সারাদেশে এত প্রশাসনিক কর্মকর্তা থাকার পরও কেন বাংলাদেশ দুর্নীতিতে ভরে যায়? আজ দুর্নীতি যদি জয় লাভ করে তাহলে আমাদের স্বাধীনতার কি প্রয়োজন ছিল। ৩০ লক্ষ শহীদের রক্তের কি প্রয়োজন ছিল। দু লক্ষ মা-বোনের সম্ভ্রমহানির কি প্রয়োজন ছিল। উপরোক্ত কথাগুলি গত শুক্রবার বিকেলে কুড়িগ্রাম জেলা প্রশাসন আয়োজিত মুক্তির উৎসব ও সুবর্ণজয়ন্তী মেলার আলোচনা সভায় বলেন রণাঙ্গনের বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হাই সরকার বীর প্রতিক।

কুড়িগ্রাম জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ রেজাউল করিম এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় আব্দুল হাই সরকার বীর প্রতিক আরো বলেন- মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে সমুন্নত রেখে দেশকে এগিয়ে নিতে হবে। আমরা সেদিন জাতির মুক্তির আশায় অস্ত্র হাতে তুলে নিয়েছিলাম। আজ সে মুক্তি আমরা কতটুকু অগ্রসর হতে পেরেছি। বাহাত্তুরের সংবিধানের আলোকে দেশ পরিচালিত করতে হবে। জাতি স্বাধীনতার ফল ভোগ করবে এটাই কামনা করি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *