পবিপ্রবিতে বৈজ্ঞানিক পদ্ধতিতে মাছ চাষের প্রশিক্ষণ

আবু হাসনাত তুহিন, পবিপ্রবি প্রতিনিধি:
পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (পবিপ্রবি) সোমবার (১৪ মার্চ) সকাল ১০টায় দিনব্যাপী মাছ চাষিদের জন্য বৈজ্ঞানিক উপায়ে মাছ চাষ ও খামার ব্যবস্থাপনা সম্পর্কে প্রশিক্ষণ হয়েছে। ‘ফিড দ্য ফিউচার’র আয়োজনে কৃষি কনফারেন্স রুমে এ প্রশিক্ষণ কার্যক্রম শুরু হয়।

অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ মুজাহিদুল ইসলামের সঞ্চালনায় দিনব্যাপী প্রশিক্ষণ কার্যক্রমের মধ্যে ছিল-বৈজ্ঞানিক উপায়ে মাছ চাষ পদ্ধতি, মাছের পরিচিতি, মিশ্র মাছ চাষ পদ্ধতি, কার্প জাতীয় মাছের মোটাতাজাকরণ প্রক্রিয়া, উপযুক্ত পুকুর নির্বাচন, মৎস্য চাষের প্রয়োজনীয় ঔষধ পরিচিতি।

প্রশিক্ষণে প্রধান অতিথি ছিলেন কৃষি অনুষদের ডিন অধ্যাপক মোহাম্মদ আলী। বিশেষ অতিথি হিসেবে ভার্চুয়ালি যুক্ত ছিলেন প্রজেক্ট পিআই সদস্য ও টেক্সাস স্টেট বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. মদন মোহন দে।

এছাড়াও বিশেষ অতিথি হিসেবে ছিলেন পবিপ্রবির অধ্যাপক বদিউজ্জামাল, অধ্যাপক জাকির হোসেন, পটুয়াখালী জেলা মৎস কর্মকর্তা মোল্লা ইমদাদুল, প্রজেক্ট পিআই’র পরিচালক অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ আক্তারুজ্জামান খানসহ মৎস্য অনুষদ এবং অন্যান্য অনুষদের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা। স্থানীয় মৎস গবেষক, মৎস চাষি ও মৎস্য ব্যবসায়ীরাও প্রশিক্ষণে অংশ নেন।
অধ্যাপক মোহাম্মদ আলী বলেন, বৈজ্ঞানিক উপায়ে মাছ চাষ করলে সফলতা আসবেই। জনগণের পুষ্টিহীনতা দূর হবে এবং দেশের আয় বৃদ্ধি পাবে।

পটুয়াখালী জেলা মৎস কর্মকর্তা মোল্লা ইমদাদুল বলেন, ইলিশ নিয়ে আরও ব্যাপক গবেষণা করে ইলিশের সঠিক প্রজননের সময় ও প্রজননের সঠিক স্থান নির্ধারণ করতে হবে।

অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ আক্তারুজ্জামান খান বলেন, আমাদেরকে গুণগত ও মানসম্মত মাছ উৎপাদন করতে হবে। বিদেশে মাছ রপ্তানি করতে পারলে বৈদেশিক আয় বাড়বে।
মৎস্য চাষি নিলুফা বলেন, আমি সাদা মাছের চাষ করি, এই প্রশিক্ষণ থেকে খাঁচায় মিশ্র মাছ চাষ সম্পর্কে জানতে পেরেছি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *