চিকিৎসকের অবহেলায় নবজাতকের মৃত্যু

নোয়াখালী প্রতিনিধি:
নোয়াখালীর মাইজদী হাসপাতাল সড়কে চিকিৎসকদের অবহেলায় এক নবজাতকের মৃত্যুর অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় গতকাল শুক্রবার রাতে নবজাতকের পরিবার সুধারাম থানায় মৌখিক অভিযোগ জানান। একটি বেসরকারী হাসপাতালে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত নবজাতক বেগমগঞ্জ উপজেলার রাজগঞ্জ ইউনিয়নের মো. সোহেল হোসেন ও আমেনা বেগমের তৃতীয় সন্তান। নবজাতকের বাবা মো. সোহেল হোসেন অভিযোগ করে বলেন, আমার স্ত্রীর আল্ট্রা করানোর পর থেকে ৩ দিন ধরে হাসপাতালে ভর্তি। শুক্রবার দুপুরে ডাক্তার বলেছে জরুরি অপারেশন করাতে হবে। জি-৮ গ্রামীন প্রাইভেট হাসপাতাল থেকে সন্ধায় ডাক্তার বলেন আমাদের মৃত সন্তান হয়েছে। তাই মরদেহ নিয়ে দাফন করতে বাড়ি চলে যাই। রাতে দাফনের সময় দেখি মাথায় বড় কাটার দাগ। তিনি আরও বলেন, মাথায় বড় কাটার ফলে আমার সন্তান মারা গেছে। আমরা থানায় অভিযোগ দিয়েছি। আমরা এ ঘটনার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করছি। নবজাতকের চাচা মো. রাজু বলেন, আমরা মরদেহ নিয়ে থানায় ঘুরছি। আমরা কঠোর শাস্তির দাবি জানাচ্ছি। হাসপাতালের পরিচালক মো. স্বপন বলেন, হাসপাতালে কোন সমস্য হয়নি, নবজাতককে বাড়ীতে হয়তো তাদের সমস্যা হয়েছে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে চিকিৎক ডা. শায়লা সুলতানা ঝুমু জানান, যেহেতু ৬ মাসের বাচ্চা, তাছাড়া পানি নেই, রোগীর ব্যাথা ছিল এবং হার্টবিট কম ছিল। সিজারে কোন সমস্যা হয়নি। তারা নবজাতককে হাসপাতাল থেকে বুঝে নিয়েছে। পরে এসে যদি কোন সমস্যার কথা বলে সে ঠিক নয়। আমাদের কোন ভুল ছিল না, এটা তার তৃতিয় সিজার। প্রয়োজনে নবজাতকে ময়না তদন্ত করে দেখুক।

সুধারাম মডেল থানার পুলিশ পরিদর্শক (ওসি) মো. আনোয়ারুল ইসলাম বলেন মৌখিক অভিযোগের ভিত্তিতে হাসপাতালে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। তবে এখন পর্যন্ত ভুক্তভোগী পরিবার থানায় কোন লিখিত অভিযোগ দায়ের করেনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.