কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সদস্য সচিবের উপর হামলা

নোয়াখালী প্রতিনিধি:
কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সদস্য সচিব সাহাদাত হোসেনের (৩৯) উপর হামলার ঘটনা ঘটেছে। আহত স্বেচ্ছাসেবক দল নেতা বর্তমানে বসুরহাট ইউনাইটেড হসপিটালে ভর্তি রয়েছেন।  

গতকাল সোমবার (১৪ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যায় উপজেলার চরকাঁকড়া ইউনিয়নের ৫নম্বর ওয়ার্ডের হৃদয় নগরে এ হামলার ঘটনা ঘটে।

সাহাদাত হোসেন অভিযোগ করে বলেন,উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সদস্য আলমগীগের কাছে ব্যবসার বকেয়া ১৩ হাজার টাকা পাওনা ছিল চরকাঁকড়া ইউনিয়নর ৫নম্বর ওয়ার্ডের হৃদয় নগরের মেহেরাজ নবী। সোমবার বিকেলের দিকে আমিসহ সামাজিক লোকজন বসে নবীর পাওনা টাকা তাকে বুঝিয়ে দেওয়া হয়। ওই সালিশ থেকে বাড়ি ফেরার পথে পূর্ব পরিকল্পিত ভাবে পূর্ব শক্রতার জের ধরে নবী,জুয়েল,সাহেদ,দুলাল,লাভলু,মিলন,আদিল,মিন্টু আমার ওপর হামলা চালায়। হামলাকারীরা প্রথমে আমাকে কিল,ঘুষি দেয়।  একপর্যায়ে তারা আমাকে লাঠিপেটা করে। হামলাকারীরা সবাই ক্ষমতাসীন দলের রাজনীতির সাথে জড়িত বলে ভুক্তভোগী স্বেচ্ছাসেবক দল নেতা দাবি করেন।      

বসুরহাট পৌরসভা স্বেচ্ছাসেবক দলের সদস্য সচিব নূর উদ্দিন ফাহাদ এই ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছে বলেন দলের সিনিয়র নেতৃবৃন্দের সাথে কথা বলে আমরা দ্রুত আইনের আশ্রয় গ্রহণ করব।  

অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে মেহেরাজ নুরনবী বলেন, আমি কোন রাজনীতির সাথে জড়িত নেই। আমি একটি ওষুধ কোম্পানীতে চাকরি করি।  আমার সাথে টাকা পয়সা নিয়ে একই এলাকার আলমগীরের সাথে সাথে একটু মনোমালিন্য হয়।  এ ঘটনার সুযোগে কোথা থেকে উল্টা পাল্টা লোকজন এসে স্বেচ্ছাসেবক দল নেতার উপর হামলা চালায়। এখন অকারণে পুরো দায় আমার উপর এসে পড়ছে।  

এ বিষয়ে জানতে কোম্পানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো.সাজ্জাদ রোমনের মুঠোফোনে কল করা হলেও তিনি ফোন রিসিভ করেননি। তাই তার তাঁর বক্তব্য পাওয়া যায়নি।    

Leave a Reply

Your email address will not be published.