সন্তানকে মাদক ব্যবসায়ী বলে অভিযোগ করলেন বাবা, এলাকাবাসির বিক্ষোভ

টি.আই সানি,গাজীপুর প্রতিনিধিঃ
নিজের সন্তানকে মাদক ব্যবসায়ী নাম দিয়ে লিখিত অভিযোগ করেন এক বাবা তবে এলাকা বাসি এই অভিযোগ মিথ্যা অপপ্রচার বলে জানান। জমি বিক্রি করতে না দেওয়ার কারনে নিজের সন্তানের নামে মিথ্যা অপপ্রচার ও বিভিন্ন ধরনের মামলা দিয়ে হয়রানির প্রতিবাদে বিক্ষোভ করেছে এলাকাবাসি।

সোমবার ২২ নভেম্বর বিকাল সাড়ে চারটার দিকে গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার কাওরাইদ ইউনিয়নের যুগিরসিট গ্রামে এঘটনা ঘটে।

জানা যায়,উপজেলার কাওরাইদ ইউনিয়নের যুগিরসিট গ্রামের মৃত সহর আলীর ছেলে সুরুজ মিয়া এলাকার বিভিন্ন মানুষকে বিভিন্ন ধরনের মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করে,নিজের ছেলে মেয়ে এবং আপন ভাইএর নামেও মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করছেন সুরুজ মিয়া।

স্থানীয়রা সুরুজ মিয়ার ছেলে শাহীন বলেন,বিশ বছর পুর্বে সুরুজ স্ত্রী ও ছয় সন্তানকে রেখে আপন শ্যালিকাকে গোপনে বিয়ে করে বাড়ি থেকে উধাও হয়ে যান সুরুজ মিয়া। গত এক বছর ধরে দ্বতীয় স্ত্রীকে নিয়ে যুগিরসিট গ্রামে আগের বসত ভিটার পাশে একটি ঘর তৈরী করে বসবাস শুরু করেন সুরুজ মিয়া। সেই থেকে সহায় সম্পত্তি বিক্রি করে দেওয়া পায়তারা করে আসছে সুরুজ মিয়া। সম্পত্তি বিক্রি করতে বাধাঁ দেওয়ায় সুরুজ মিয়া ক্ষিপ্ত হয়ে তার ছেলে শাহীন মিয়াকে মাদক েেসবনকারি ও মাদক ব্যবসায়ী বলে শ্রীপুর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ারে করেন ।

শাহীন আরো বলেন,এবিষয়ে ঢাকার ডাক নামে পত্রিকায় একটি সংবাদ প্রকাশ হয় যা সম্পন্ন মিথ্যা বানোয়াট ভাত্তিহীন। এর মধ্যে সুরুজ মিয়া তার দ্বীতিয় স্ত্রীকে বিদেশে পাঠিয়ে দিয়েছে, মুলত সুরুজ মিয়া তার ছয় সন্তানদেরকে সকল সম্পত্তি থেকে বিচ্ছিন্ন করে রাখান জন্য এবং সন্তানদেরকে জমি না দিয়ে বিক্রি করে দেওয়ার পায়তারার করতেছে বলে জানান তার ছেলে শাহীন মিয়া ও সুরুজ মিয়ার আগের স্ত্রী ছয় সন্তানের জননী রোকেয়া বেগম।

সুরুজ মিয়ার আগের স্ত্রী রোকেয়া বেগম বলেন,আমার ছয় ছেলে মেয়ে রেখে আমার আপন ছোট বোনকে বিয়ে করে বাড়ি থেকে পালিয়ে যায় সুরুজ মিয়া,বিশ বছর ধরে বাড়ির বাহিরে থকতেন সুরুজ,আমার ছয় সন্তানদের অন্যের বাড়ি কাজ করে মানুষ করেছি আমি।বিশ বছর পর বাড়িতে এসে এখন আমার সন্তাদেরকে বিভিন্ন  মিথ্যা মামলা দিয়ে বসত বাড়ি এবং সম্পত্তি থেকে বঞ্চিত করে  উচ্ছেদ করে দেওয়ার জন্য পায়তারা করছেন। সন্তানদেরকে সম্পত্তি না দিয়ে সব সম্পত্তি বিক্রি করে দিতে চাচ্ছে সুরুজ মিয়া। আমার সন্তানেরা বাধাঁ দেওয়ার আমার ছেলের নামে মিথ্যা মাদকরে অভিযোগ দিয়েছে যা সম্পন্ন মিথ্যা বানোয়াট।

এবিষয়ে সুরুজ মিয়া বলেন,আমার ছেলে মেয়ে সবাই প্রাই সময় আমাকে মারধর করে,আমার জমি বিক্রির টাকা আত্মসাৎ করেছে আমার ছেলে ও ছেলের শশুর। স্থানীয় ভাবে বিচার শালিসের মাধ্যমে আমার টাকা ফেরৎ দেওয়ার কথা হয় কিন্তু ওই টাকা দেই দিচ্ছি বলে তালবাহানা করছে। টাকা চাইলে আমাকে আমার ছেলে মেয়েরা মারধোর করে। সেই কারনে আমি অভিযোগ দিয়ে আইনের আশ্রয় নিয়েছি।

এলাকাবাসি ও স্থানীয় মেম্বার মোমিনুল কাদের বলেন, সুরুজ তার আগের সন্তাানদের কে সম্পতি না দিয়ে বিক্রি করার চেষ্ট করছেন,এই সব বিষয় নিয়ে তাদের পরিবারে বিরোধ চলছে। এবং তার ছেলে শাহীনকে মাদক ব্যবসায়ী বানিয়ে থানায় মিথ্যা অভিযোগ দিয়েছে। মুল ঘটনা তাদের সম্পত্তি নিয়ে বিরোধ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *