শেরপুরের সীমাবাড়ীতে নৌকার অফিসে অগ্নিসংযোগ

মাসুম বিল্লাহ, বগুড়া জেলা প্রতিনিধি,
বগুড়ার শেরপুরের সীমাবাড়ী ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে শুরু থেকে শান্তিপূর্ণ পরিবেশ বিরাজ করলেও শেষ মুহুর্তে এসে আওয়ামীলীগ মনোনীত প্রার্থীর নৌকা প্রতীকের একটি অফিস পেট্রোল দিয়ে অগ্নিসংযোগ করে পুড়িয়ে দিয়েছে দুর্বৃত্তরা। এতে নৌকা অফিসের পোষ্টার, কাপড়, পিভিসি প্যানা পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। এ ঘটনায় ঐ এলাকায় আওয়ামীলীগ নেতা কর্মীরা ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।

জানা যায়, আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে সীমাবাড়ী ইউনিয়নের লাঙ্গলমোড়া গ্রামের(সোবাহানমোড়) নামক স্থানে আওয়ামীলীগ মনোনীত নৌকা প্রতীকের প্রার্থী গৌরদাস রায় চৌধুরীর নৌকার নির্বাচনী অফিস স্থাপন করা হয়। গত ৬ নভেম্বর সন্ধ্যায় ওই অফিস থেকে তিনটি ভাগে বিভক্ত হয়ে কর্মীরা ভোটের প্রচানায় বের হন। রাত সাড়ে বারোটায় ঐসব নেতাকর্মীরা পুনরায় অফিসে এসে একত্রিত হয়ে যে যার মতো নিজ নিজ বাড়ী ফিরে যান।

৭ নভেম্বর রবিবার ভোরে এলাকার লোকজন অফিসের দিকে গিয়ে দেখে যে কে বা কাহারা পট্রোল দিয়ে আগুন জালিয়ে নির্বাচনী অফিস পুড়িয়ে দিয়েছে।
ঐ অফিসের দায়িত্বে থাকা আওয়ামীলীগের গ্রাম কমিটির সভাপতি মওলা বক্স বলেন, রোববার ভোর ৫ টার দিকে ঘুম থেকে উঠে অফিস মুখে হেটে আসতে থাকি এবং তাকিয়ে দেখি অফিস কেবা কাহারা পেট্রোল দিয়ে পোষ্টার প্যানা পুড়িয়ে দিয়েছে। পরে এঘটনা টি নেতাদের কে জানাই।

এ প্রসঙ্গে আওয়ামীলীগ মনোনীত প্রার্থী গৌরদাস রায় চৌধুরী বলেন, আমার অফিসে আগুন দেয়ার ঘটনার বিষয়টি শুনে ইউনিয়ন নেতা কর্মীদের নিয়ে সরেজমিনে যেয়ে দেখি নির্বাচনী অফিস পুড়িয়ে দেয়া হয়েছে। আসন্ন ইউনিয়ণ পরিষদ নির্বাচনে সীমাবড়িতে এখন পর্যন্ত পরিবেশ অত্যন্ত শান্তিপূর্ণ রয়েছে। নৌকার গনজোয়ারে ভীত হয়ে জ¦ালাও পোড়াও মহলটি নানা ভাবে ষড়যন্ত্রে নেমেছে। ষড়যন্ত্র করে নৌকার বিজয় ঠেকানো যাবেনা।
নির্বাচনী অফিসে অগ্নিসংযোগের খবর পেয়ে শেরপুর থানা পুলিশের উপপুলিশ পরিদর্শক আনন্দ কুমার মোহন্ত সকাল সাড়ে নয় টার দিকে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *