গণপরিবহন বন্ধ থাকায়, দিশেহারা কুয়াকাটার পর্যটকরা

জাহিদুল ইসলাম জাহিদ,কুয়াকাটা:
ডিজেলের দাম বাড়ানোর প্রতিবাদে আজ শুক্রবার (৫ নভেম্বর) সকাল থেকে গণপরিবহন অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ রেখেছে পরিবহন মালিক ও শ্রমিকদের তিনটি সংগঠন।

ফলে আজ সকাল ৬টা থেকে সারা দেশে বন্ধ রয়েছে বাস চলাচল। একইভাবে সারা দেশে পণ্য পরিবহনও বন্ধ রয়েছে।

সকালে পর্যটন কেন্দ্র কুয়াকাটার বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা গেছে,জ্বালানি তেলের দাম বাড়ানোর প্রতিবাদে শুক্রবার ভোর থেকে সারা দেশের ন্যায় কুয়াকাটায়ও বাস-ট্রাকের ধর্মঘট চলছে। ফলে  বিপাকে পড়েছে কুয়াকাটায় আগত হাজার হাজার পর্যটকরা ।

 পর্যটন নগরী কুয়াকাটায় ঘুরতে আসা ও অগ্রিম বুকিং দিয়ে রাখায়  গণপরিবহন বন্ধ থাকায় আসা ও যাওয়ার পরিবহনের খোঁজে দিশেহারা হয়ে পড়েছেন আগত পর্যটকরা। এদিকে আর্থিক ক্ষতির মুখে আবাসিক হোটেলে মোটেলসহ পর্যটন নির্ভর ব্যবসায়ীরা।

কুয়াকাটা আসার জন্য অগ্রিম বুকিং দেওয়া রেজাউল ফোনের মাধ্যমে বলেন, আমি ও আমার পরিবার সহ মোট ১৫ জন কুয়াকাটা ভ্রমণে যাওয়ার জন্য হোটেল বুকিং সহ নানা পরিকল্পনা নিয়ে ছিলাম, তবে হঠাৎ করে পরিবহন মালিকরা অনির্দিষ্টকালের জন্য গণপরিবহন বন্ধ রাখায় আমাদের সকল ভ্রমণের পরিকল্পনা বিফল হয়ে যায়।

কুয়াকাটা ভ্রমণে আসা পর্যটক সোনিয়া বেগম বলেন, আমরা বুধবারে কুয়াকাটায় বেড়াতে আসি, আজ বাড়ি যাওয়ার পথে বাস কাউন্টারে এসে জানতে পারি গণপরিবহন চলাচল বন্ধ, এখন অতিরিক্ত ভাড়া গুনে ঢাকার পথে রওনা দেওয়ার চেষ্টায় আমরা।

এ সময় লক্ষ্য করা যায় বিআরটিসি গাড়ি চলতে এবং প্রচন্ড ভিড় এক একটি গাড়িতে পরিপূর্ণ হওয়ার পরও পর্যাপ্ত যাত্রী ঘন্টার পর ঘন্টা বাড়ি ফেরার অপেক্ষায় রয়েছে, কেউ বা অতিরিক্ত ভাড়া দিয়ে মটরবাইক, মাইক্রো গাড়ি দিয়ে বাসায় ফিরছে, হঠাৎ এমন সিদ্ধান্তে দিশেহারা পর্যটক ও কুয়াকাটার ব্যবসায়ী।

হোটেল আল বেলাল আবাসিকের পরিচালক,মাসুম আল বেলাল জানান, আজ শুক্রবার অনেক বুকিং ছিল হঠাৎ করে গণপরিবহন বন্ধ হওয়ায় সবগুলো বুকিং বাতিল হয়েছে, এতে আমাদের লোকসানে পড়তে হয়েছে।

ট্যুর অপারেটর এ্যাসোসিয়েশন অব কুয়াকাটা (টোয়াক)এর সভাপতি, রুমান ইমতিয়াজ তুষার বলেন, আজ কুয়াকাটা যে পরিমাণ পর্যটক আসার কথা সে পরিমাণ পর্যটক আসেনি, প্রশ্নের জবাবে কারণ জানতে চাইলে বলেন, হঠাৎ করে গণপরিবহন বন্ধ হয়ে যাওয়ায় আমাদের পর্যটকরা কুয়াকাটা বেড়াতে আসতে পারেনি, এই কারণে  আমাদের পর্যটন সংশ্লিষ্ট সকল ব্যবসায়ীদের লোকসানে পড়তে হয়েছে, তিনি আরো বলেন সকল সমস্যা অতি দ্রুত সমাধান করে গণপরিবহন সহ পণ্য  পরিবহন চলাচল করবে এটা আমাদের প্রত্যাশা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *