ঝুঁকিপূর্ন ভবনে ভোলা আবহাওয়া অফিসে জনবল মাত্র ৩ জন!

সাব্বির আলম বাবু, ভোলাঃ
জনবল সংকটে ধুঁকছে ভোলার প্রথম শ্রেণির আবহাওয়া পর্যবেক্ষণাগার। দীর্ঘদিন থেকে প্রয়োজনের তিন ভাগের এক ভাগ জনবল দিয়ে চলছে। বর্তমানে জনবল মাত্র ৩ জন। এতে আবহাওয়ার পূর্বাভাসসহ অফিসিয়াল কার্যক্রম ব্যাহত হচ্ছে। অন্যদিকে আবহাওয়ায় অফিসের ভবনটি ঝুঁকিপূর্ণ। জীবনের ঝুঁকি নিয়ে প্রতিনিয়ত কাজ করছেন কর্মকর্তারা।

জানা যায়, প্রতিষ্ঠার পর বেশ কয়েকবার সংস্কার হলেও ফের জীর্ণ দশায় পরিণত হয়েছে অফিসটি। প্রায় ছাদের পলেস্তারা খসে পড়ে। দরজা-জানালা- ও গেট এবং পিলার ঝুঁকির মধ্যে রয়েছে। ২৪ ঘণ্টার আবহাওয়ার পূর্বাভাস নির্ণয়ের জন্য অফিসটিতে আধুনিক যন্ত্রপাতি রয়েছে। অফিসে আটটি পদের বিপরীতে আছেন মাত্র ৩ জন। এর মধ্যে গুরুত্বপূর্ণ ৩টি সিনিয়র অবজারভার ও ২টি বেলুন মেকারের পদ শূন্য রয়েছে। সূত্র জানায়, ভোলা পৌরসভার ১ নম্বর ওয়ার্ডে ১৯৬৯ সালে আবহাওয়া অফিসটি স্থাপিত হয়। শুরু থেকেই এটি প্রথম শ্রেণির আবহাওয়া অফিস। এখানে রয়েছে বাতাসের গতিবেগ, বৃষ্টিপাত, বায়ুচাপ ও তাপমাত্রা এবং বাতাসের দিক নির্ণয়ের আধুনিক যন্ত্রপাতি, যা থেকে ভোলাবাসী আবহাওয়ার পূর্বাভাস জানতে পারছে। বেলুন মেকার মো. মনির জানান, ভনটি ঝুঁকিপূর্ণ। জীবনের ঝুঁকি নিয়ে প্রতিনিয়ত কাজ করতে হচ্ছে। যে কোনো সময় ভবন ধসে পড়তে পারে।

ভোলা আবহাওয়া অফিসের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আবু জাফর বলেন, আমাদের আবহাওয়ার অবজারভেশন করতে সমস্যা হচ্ছে। স্বাভাবিকভাবে কাজ করতে পারছি না। ভবনটিও জরাজীর্ণ, এটি সংস্কার প্রয়োজন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *