যশোর-চট্টগ্রাম-কক্সবাজারের দ্বার খুলল ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স

শাহারুল ইসলাম ফারদিন:
যশোর থেকে চট্টগ্রাম ও কক্সবাজার রুটে ফ্লাইট চালু করেছে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স। বৃহস্পতিবার সকালে যশোর বিমানবন্দর থেকে এই দুই রুটের ফ্লাইট উদ্বোধন করেন বেসামরিক বিমান চলাচল ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী মো. মাহবুব আলী। বেসামরিক বিমান ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী মাহবুব আলী এমপি বলেছেন, যশোরকে পর্যায়ক্রমে আন্তর্জাতিক বিমান বন্দর করা হবে। ভৌগলিক অবস্থানের কারণেই যশোর এর যোগ্য। তারই ধারাবাহিকতায় যশোর বিমান বন্দরের টার্মিনাল সম্প্রসারণ করা হয়েছে। এ প্রক্রিয়া চলমান থাকবে।

বৃহস্পতিবার যশোর-চট্টগ্রাম ও যশোর-কক্সবাজার রুটে ইউএস বাংলা ফ্লাইট চালুর উদ্বোধনকালে এ কথা বলেন মাহবুব আলী এমপি। ইউএস বাংলা এয়ারলাইন্সের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ আবদুল্লাহ আল মামুনের সভাপতিত্বে বক্তৃতা করেন যশোর-১ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ আফিল উদ্দিন, যশোর-২ আসনের সংসদ সদস্য মেজর জেনারেল নাসির উদ্দিন, সংসদ সদস্য আনোয়ারুল আজিম আনার, খুলনা রেজ্ঞের ডিআইজি ড. খন্দকার মহিদ উদ্দিন, প্রেসক্লাব যশোরের সভাপতি জাহিদ হাসান টুকুন। উপস্থিত ছিলেন যশোরের জেলা প্রশাসক তমিজুল ইসলাম খান, পুলিশ সুপার প্রলয় কুমার জোয়ারদার প্রমুখ। এসময় যশোর-কলকাতা রুটে বিমান যোগাযোগের দাবি তোলেন যশোর-১ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ শেখ আফিল উদ্দিন ও প্রেসক্লাব যশোরের সভাপতি জাহিদ হাসান টুকুন।

ইউএস বাংলা এয়ারলাইন্সের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ আবদুল্লাহ আল মামুন বলেন, ২০১৪ সালে মাত্র ১৫০ জন কর্মকর্তা-কর্মচারী নিয়ে অভ্যন্তরীণ রুটে আমাদের যাত্রা শুরু হয়েছিলো। আজ অভ্যন্তরীণ রুট ছাড়াও দোহা, মাস্কাট, গুয়াংজুসহ ৯টি আন্তর্জাতিক রুটে ইউএস বাংলার ফ্লাইট চলাচল করে। এখন আমাদের কর্মকর্তা-কর্মচারী দেড় সহস্রাধিক। আগামী দু’বছরের মধ্যে অভ্যন্তরীণ ও আন্তর্জাতিক রুটগুলো আরও সম্প্রসারণ করা হবে। এসময়ে বর্তমানের ১৪টি এয়ারক্রাফটের সাথে আরও ১৬টি অত্যাধুনিক এয়ারক্রাফট যুক্ত করার পরিকল্পনা রয়েছে আমাদের।

মোহাম্মদ আবদুল্লাহ আল মামুন জানান, প্রাথমিকভাবে রবি, মঙ্গল ও বৃহস্পতিবার যশোর থেকে সকাল ৯টা ১৫ মিনিটে চট্টগ্রামের উদ্দেশ্যে উড্ডয়ন করবে। একই দিন বিকেল ৫টা ১০ মিনিটে চট্টগ্রামের হযরত শাহ আমানত আন্তর্জাতিক বিমান বন্দর থেকে যশোরের উদ্দেশ্যে যাত্রা করবে। এছাড়া পর্যটকদের সময় ও অর্থ সাশ্রয়ের উদ্দেশ্যে যশোর থেকে দেশের অন্যতম পর্যটন কেন্দ্র কক্সবাজারে সপ্তাহে চার দিন ফ্লাইট পরিচালনা করবে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স। প্রাথমিকভাবে শনি, সোম, বুধ ও শুক্রবার যশোর থেকে দুপুর ১টা ৪৫ মিনিটে কক্সবাজারের উদ্দেশ্যে ছেড়ে যাবে। অপরদিকে কক্সবাজার থেকে বিকেল ৩টা ২৫ মিনিটে যশোরের উদ্দেশ্যে ছেড়ে যাবে। সব ধরনের ট্যাক্স ও সারচার্জসহ যশোর থেকে চট্টগ্রামে ওয়ানওয়ের ন্যূনতম ভাড়া ৬ হাজার টাকা ও রিটার্ন ভাড়া ১২ হাজার টাকা। এছাড়া যশোর থেকে কক্সবাজরে ওয়ানওয়ের ন্যূনতম ভাড়া সাড়ে ৬ হাজার টাকা ও রিটার্ন ভাড়া ১৩ হাজার টাকা। খুব শিগগিরই সৈয়দপুর থেকে কক্সবাজার, সিলেট থেকে চট্টগ্রাম ও কক্সবাজার রুটে ফ্লাইট পরিচালনার পরিকল্পনা রয়েছে বলেও জানিয়েছে  ইউএস-বাংলা। ইউএস-বাংলা এয়ালাইন্সের বিমান বহরে ১৪টি এয়ারক্রাফট রয়েছে, যার মধ্যে ৪টি বোয়িং ৭৩৭-৮০০, ৭টি ব্র্যান্ডনিউ এটিআর ৭২-৬০০ ও ৩টি ড্যাশ ৮-কিউ৪০০।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *